১৪ জুন ২০২৪, শুক্রবার

অস্ট্রেলিয়ার কাছে পাত্তাই পেল না ইংল্যান্ড

- Advertisement -

অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড ম্যাচ মানেই বাড়তি উত্তেজনা। সেটা মাঠের খেলা ছাপিয়ে ছড়ে পড়ে মাঠের বাইরেও। দুই দলের সাবেক ক্রিকেটারদের মধ্যেও চলে কথার লড়াই। সেই ম্যাচ যদি বিশ্বকাপের মতো আসরে হয় তাহলে তো কথাই নেই। দুই দলের মর্যাদার লড়াইয়ে ইংল্যান্ডকে ৩৬ রানে হারিয়ে শেষ হাসি হেসেছে অস্ট্রেলিয়া।

টসে জিতে আগে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন জশ বাটলার। অধিনায়কের সিদ্ধান্তকে যথার্থ প্রমাণ করতে পারেননি জোফরা আর্চার-মার্ক উডরা। যদিও প্রথম ওভারে মাত্র ২ রান দিয়ে দারুণ কিছুর ইঙ্গিত দিয়েছিলেন মঈন আলী। তবে এরপর থেকেই ইংলিশ বোলারদের উপর তান্ডব চালান ডেভিড ওয়ার্নার-ট্রাভিস হেড। দুজনের প্রথম উইকেট জুটিতে ৩০ বল থেকে উঠে ৭০ রান।

ইংল্যান্ডকে প্রথম ব্রেক থ্রু এনে দেন মঈন। ওয়ার্নারকে বোল্ড করেন তিনি। তার আগে অজি ওপেনার খেলেছেন ১৭ বলে ৩৯ রানের ঝোড়ো ইনিংস। এরপর দ্রুত ফিরেছেন হেড। প্যাভিলিয়নে ফেরার আগে ১৮ বলে তার ব্যাট থেকে এসেছে ৩৪ রান।

অস্ট্রেলিয়ার ইনিংসে একজনও পারেননি ফিফটি করতে। তবে প্রথমসারির সাত ব্যাটারই করেছেন দুই অঙ্কের ঘরে রান। প্রথম ৫ ব্যাটারের প্রত্যেকেই ত্রিশের উপরে করেছেন রান। তাতেই চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে প্রথম দলীয় দুইশো রানের ইনিংস দেখতে পায় সমর্থকরা।

ইংল্যান্ডের হয়ে ৪ ওভারে ৪৪ রান দিয়ে দুটি উইকেট শিকার করেন ক্রিস জর্ডান।

অস্ট্রেলিয়ার প্রথমসারির সাত ব্যাটারই করেছেন দুই অঙ্কের ঘরে রান

২০২ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা ভালো করে ইংল্যান্ড। ফিল সল্ট ও বাটলার অজি বোলারদের উপর বেশ চড়াও হয়ে খেলেছেন। বাটলারের চেয়ে এদিন বেশ আক্রমণাত্মক ছিলেন সল্ট। ২৩ বলে ৪ বাউন্ডারি ও ২ ছক্কায় ৩৭ রান করে সল্ট ফিরলে ভাঙে ৭৩ রানের জুটি।

একটু পরেই প্যাভিলিয়নে ফিরেছেন বাটলারও। ফিফটি মিসের হতাশা নিয়ে ফিরেছেন ইংলিশ অধিনায়ক। জাম্পার বলে আউট হওয়ার আগে ২৮ বলে ৫ বাউন্ডারি ও ২ ছক্কায় করেছেন ৪২ রান।

উইল জ্যাকস-জনি বেয়ারস্টো তেমন কিছু্ই করতে পারেননি। তবে মঈন আলী চেষ্টা করেছিলেন কিন্তু তিনিও পারেননি ইংল্যান্ডকে জেতাতে। ১৫ বলে ৩ ছক্কায় ২৫ রান করে প্যাট কামিন্সের বলে ক্যাচ ওয়ার্নারের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন তিনি। হ্যারি ব্রুক ও লিয়াম লিভিংস্টোন ইংল্যান্ডের হারের ব্যবধান কমাতে পেরেছেন শুধু।

অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ৪ ওভারে ২৩ রান দিয়ে ২ উইকেট শিকার করেছেন কামিন্স। ২টি উইকেট নিতে জাম্পা খরচ করেছেন ৪ ওভারে ২৮ রান।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img