NCC Bank
- Advertisement -NCC Bank
৮ আগস্ট ২০২২, সোমবার

আফগানিস্তানের নতুন টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক রশিদ খান

- Advertisement -

আফগানিস্তানের নতুন টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক রশিদ খান। এই লেগ স্পিনার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করবেন। ক্রিকেটের ক্ষুদ্রতম সংস্করণে তার ডেপুটি হিসেবে থাকবেন মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান নাজিবুল্লাহ জাদরান।

এর আগেও আফগানিস্তানকে নেতৃত্ব দিয়েছেন রশিদ খান। ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বর থেকে নভেম্বর পর্যন্ত আফগানদের টি-টোয়েন্টি দলের দায়িত্ব ছিল রশিদ খানের কাঁধে। সেবার তিন ফরম্যাটেরই অধিনায়ক হয়েছিলেন এই লেগ স্পিনার। আগেরবার তিনি অধিনায়ক হিসেবে এসেছিলেন আসগর আফগানের বদলে। এবারও তার অধিনায়কত্ব এলো আফগানকে ছাটাই করার পরই।  এতদিন এই আসগর আফগানেরই ডেপুটি ছিলেন রশিদ খান।

আফগান ক্রিকেট নিয়ে খোঁজখবর রাখলে অধিনায়কত্ব নিয়ে এমন সার্কাসে আপনি অবাক হবেন না । বরং এটাকেই ভাববেন স্বাভাবিক। বছর দুয়েক আগে যখন দরজায় কড়া নাড়ছিল ২০১৯ বিশ্বকাপ, আচমকা নিয়মিত অধিনায়ক এই আসগরকেই সরিয়ে দায়িত্ব দেওয়া হয় গুলবাদিন নাঈবকে। দলের পরিবেশ নষ্ট করা সেই সিদ্ধান্তের পক্ষে ছিলেন না মোহাম্মদ নবি, রশিদ খানের মতো সিনিয়ররা।  গুলবদিন নাঈবের অধিনায়কত্বে তাই স্বাভাবিকভাবেই ভরাডুবি ঘটে বিশ্বকাপে। এরপর তিন সংস্করণে তিন অধিনায়কের পথেও হেঁটেছিল আফগানিস্তান, কাজের কাজ হয়নি। নাকি কাজের কাজটাই করতে চায়নি আফগান বোর্ড, সেটাও ভাবনার বিষয়।

ছবি: ইন্টারনেট
ছবি: ইন্টারনেট

গুলবদিন নাঈবের কাছেই ছিল ওয়ানডে ক্যাপ্টেনের আর্ম ব্যান্ড,  রশিদ খানের কাছে ছিল টি-টোয়েন্টি অধিনায়কত্ব। তরুণ রহমত শাহ হয়েছিলেন  টেস্ট অধিনায়ক। বিশ্বকাপে ব্যার্থতার দায়ে  গুলবদিন নাঈবের অধিনায়কত্ব কেড়ে নেওয়া তো হয়েছেই, কোনো ম্যাচে নেতৃত্ব দেওয়ার আগেই ছাটাই হয়েছিলেন টেস্ট অধিনায়ক রহমত শাহ। টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক রশিদ খানের হাতেই দেওয়া হয়েছিল তিন ফরম্যাটের নেতৃত্বের ভার। বাংলাদেশের বিপক্ষে টেস্ট জয়ও এসেছিল রশিদের হাত ধরে।  তবুও ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে আচমকা রশিদের হাত থেকেও কেড়ে নেওয়া হয় নেতৃত্ব।  আরেকবার ভরসা রাখা হয় আসগর আফগানের উপর। সেই ভরসা শেষ  হয়েছে দেড় বছরেই।

প্রতিবার বিশ্বকাপের শব্দ শোনা যাবে আর আসগর নেতৃত্ব হারাবেন, এটাই তো নিয়তি। নতুন মেয়াদে দায়িত্ব নিয়ে দেড় বছরও টিকতে পারেননি , চলতি বছরের অক্টোবরে সংযুক্ত আরব আমিরাতে অনুষ্ঠিত হবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ, তার মানে আরেকবার বিশ্বকাপের আগে নেতৃত্ব হারালেন আফগান । গত জুনের শুরুতে এই ঘোষনা আসার পর নতুন টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক হিসেবে শোনা যাচ্ছিল রশিদের নাম। যদিও গত মাসে রশিদ খান জানিয়েছিলেন তিনি অধিনায়কত্ব নিতে  চান না। কারন তার ধারনা ছিল অধিনায়কত্ব তার মাঠের পারফরম্যান্সের ক্ষতিসাধন  করবে।  উল্লেখ্য টি-টোয়েন্টি বোলিং র‌্যাঙ্কিংয়ে রশিদ খান আছেন দুই নম্বরে।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img