NCC Bank
- Advertisement -NCC Bank
১৬ আগস্ট ২০২২, মঙ্গলবার

আমাদের অনেক কাজ বাকি আছে: পাপন

- Advertisement -

বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় আবারো বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন নাজমুল হাসান পাপন। বুধবার বিসিবি পরিচালনা পরিষদের নির্বাচনে পরিচালক নির্বাচিত হওয়ার পর বৃহস্পতিবার ২৩ জন নির্বাচিত পরিচালকের সঙ্গে ক্রীড়া পরিষদের নির্বাচিত ২ জন অর্থাৎ মোট ২৫জন পরিচালকের ভোটে আগামী ৪ বছরের জন্য বিসিবি সভাপতি পদে পুনর্বহাল হয়েছেন পাপন।

দুপুরে মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে পুনর্নির্বাচিত সভাপতি হিসেবে পাপনকে ফুলেল সংবর্ধনা দিয়ে বরণ করে নেওয়া হয়। এরপর আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে গণমাধ্যমের মুখোমুখি হন পাপন। সেখানে তিনি বলেন, তাঁর কাজ এখনো শেষ হয়নি। মানুষের প্রত্যাশার সীমার সাথে তাল মেলাতে বোর্ডের কর্মতৎপরতা আরো বৃদ্ধি করার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন পাপন।

“আমাদের অনেক কাজ বাকি আছে। এতোদিন যদি মনে করে থাকেন আমরা অনেক কাজ করে ফেলেছি এটা সবচেয়ে বড় ভুল। কারণ সবচেয়ে কঠিন সময়টা সামনে আসছে। এখন মানুষের প্রত্যাশা বেড়ে গেছে, খেলোয়াড়দের প্রত্যাশা বেড়ে গেছে। আগে দেশে বা বিদেশে কোন বড় দলকে হারালেই মনে হত বিরাট খবর। এখন দেশে বড় দলদের ৪-১ এ হারালেও মানুষ বলে হোয়াইটওয়াশ কেন হলোনা?”- বলেছেন পাপন

নির্বাচনে খুশি পাপন

পরিচালক পদে পুরনোদের সংখ্যাধিক্য থাকলেও একদম নতুন ৬ জন পরিচালক নির্বাচিত হয়েছেন এবারের নির্বাচনে। কিন্তু তাঁদের প্রত্যেকের রয়েছে সংগঠক হিসেবে মাঠ পর্যায়ের অভিজ্ঞতা। এই অভিজ্ঞতা বোর্ডের কাজে লাগবে এমন আশাবাদও ব্যক্ত করেছেন সভাপতি।

“আমাদের আজকে যত সাফল্য তাতে যাঁরা আগে ছিল, তাঁদের প্রত্যেকের অবদান আছে, যে অবদান কোনভাবেই অস্বীকার করা যাবেনা। কিন্তু যাঁরা নতুন এসেছেন, তাঁরাও কিন্তু কেউ হঠাৎ করে আসেননি। তাঁদের সবাই অনেক আগে থেকেই ক্রিকেটের সাথে যুক্ত, কেউ কেউ তো আমারও আগে থেকে যুক্ত। ওদের অভিজ্ঞতা অনেক কাজে দেবে। সবচেয়ে বড় কথা, নতুনদের বেশিরভাগই বয়সে তরুণ।”

এ নিয়ে চতুর্থবারের মতো সভাপতির চেয়ারে বসছেন নাজমুল হাসান পাপন।  ২০১২ সালে প্রথমে সরকার কর্তৃক মনোনীত সভাপতি ছিলেন তিনি। ২০১৩ সাল থেকে নির্বাচনের মাধ্যমে সভাপতি হন এরপর থেকে এই পদেই বহাল আছেন তিনি।

 

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img