৭ ডিসেম্বর ২০২২, বুধবার

ইংল্যান্ড-শ্রীলংকা রঙ্গীন পোশাকের সিরিজ শুরু তেইশ জুন

- Advertisement -

২৩ জুন শুরু হচ্ছে ইংল্যান্ড-শ্রীলংকা টি২০ সিরিজ। লংকান রা যুক্তরাজ্য সফরে ৩টি টি২০র সাথে  খেলবে ওয়ানডে বিশ্বকাপ সুপার লিগের গুরুত্বপূর্ন ৩টি ম্যাচ।

ছবিঃ টুইটার
ছবিঃ টুইটার

মে মাসে বাংলাদেশ সফর শেষে ইংল্যান্ডে পাড়ি জমিয়েছে শ্রীলংকা। বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ফাইনালের দামামার মাঝে ৩ ম্যাচের টি২০ সিরিজে ইংল্যান্ডের মুখোমুখি হচ্ছে শ্রীলংকা। ২৩ তারিখ কার্ডিফের সোফিয়া গার্ডেনসে প্রথম ম্যাচে মরগানের দলের মুখোমুখি হবে লংকানরা। টি২০তে দুদলের মুখোমুখি ৯ দেখায় ইংল্যান্ড জিতেছে ৫ টি ম্যাচ এবং শ্রীলংকার জয় ৪ ম্যাচে। তবে পরিসংখ্যান যা বলেনা তা হলো, দুদল সর্বশেষ টি২০ তে মুখোমুখি হয়েছে ২০১৮ সালে। ৩ বছর পর ইংল্যান্ড টি২০র এক নম্বর দল আর শ্রীলংকার অবস্থান বাংলাদেশের ঠিক উপরে ৮ নম্বরে। তাই এই সিরিজে এগিয়ে থেকেই মাঠে নামবে ইংলিশরা।

অপরদিকে, সাম্প্রতিক ফর্ম মোটেও সুখকর নয় ইংল্যান্ডের। ভারত সফরে ৩ ফরম্যাটেই সিরিজ হারার পর টেস্টে নিজের মাঠে হেরেছে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে। তাই শ্রীলংকাকে হালকাভাবে নেয়ার কোন সুযোগই নেই ইংল্যান্ডের। এই সিরিজকে সামনে রেখে ইংল্যান্ড বেন স্টোকসের সার্ভিস মিস করলেও দির্ঘদিন পর দলে ফিরেছেন অলরাউন্ডার ক্রিস ওকস।

টি২০র পর ২৯ জুন থেকে ওয়ানডে বিশ্বকাপ সুপার লিগের ৩ ম্যাচের ওডিআই সিরিজও খেলবে দুদল। মজার ব্যাপার হলো দুদলের ৭৫ ওডিআই ম্যাচে উভয় দল জিতেছে সমান ৩২ টা করে ম্যাচ। যদিও বর্তমান প্রেক্ষাপট ভিন্ন কথা বলে, ৯ ম্যাচে ৪০ পয়েন্ট নিয়ে বর্তমানে ইংল্যান্ড আছে সুপার লিগ টেবিলের দুইয়ে আর ৬ ম্যাচে শুধুমাত্র বাংলাদেশের সাথে পাওয়া এক জয়ে ৮ পয়েন্ট নিয়ে শ্রীলংকার অবস্থান টেবিলের তলায়, ১৩ নম্বরে। তাই ২০২৩ বিশ্বকাপে সরাসরি কোয়ালিফাই করতে এই সিরিজ থেকে পয়েন্ট আদায় করার বিকল্প নেই লংকানদের সামনে। সিরিজ দুটি সামনে রেখে দুদলই অভিষেকের অপেক্ষায় থাকা একাধিক খেলোয়াড় নিয়ে স্কোয়াড সাজিয়েছে। শ্রীলংকার চারিথ আসালাংকা,শিরান ফার্নান্দো,প্রবীন জয়াবিক্রমা,ইশান জয়ারত্নেরা রয়েছেন ওডিআইতে অভিষেকের অপেক্ষায়। আর ওলি স্টোনের ইনজুরিতে ইংল্যান্ড দলে ডাক পেয়েছেন আনক্যাপড সাসেক্স পেসার জর্জ গার্টন।

 

 

 

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img