NCC Bank
- Advertisement -NCC Bank
১৮ আগস্ট ২০২২, বৃহস্পতিবার

এমন ক্রীড়াপ্রেমী প্রধানমন্ত্রী কি আর কোথাও আছেন!

- Advertisement -

বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের সবচেয়ে বড় ভক্ত কে? চোখের সামনে নিশ্চিতভাবেই বেশ কিছু মুখ ভেসে ওঠার কথা। তাদের কারোর মধ্যে কি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছিলেন? না থাকলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫ তম জন্মদিনে জেনে রাখুন তিনিও টাইগার ক্রিকেটের অনেক বড় ভক্ত, খুব বেশিই ক্রীড়াপাগল ব্যক্তি। কতটা পাগল সেটা বোঝা হয় বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের কথাতেই।

“আমি অবাক হয়ে যাই আসলে। উনি যে কতটা ভালোবাসেন খেলাধুলাকে, আমার মনে হয় আমাদের কারোরই ধারণা নেই। উনি যে কতটা ক্রীড়াপাগল, সেটা বলে বোঝানোটা কঠিন”- বলছিলেন নাজমুল হাসান পাপন

প্রধানমন্ত্রী যে কি পরিমাণ ক্রীড়াপাগল, তা বোঝাতে বিসিবি সভাপতি শুনিয়েছেন বেশ কিছু ঘটনাও। সত্যিই, একজন দেশপ্রধান শত ব্যস্ততার মধ্যেও কি করে এতটা ক্রীড়াপ্রেমী হতে পারেন!

“উনি তখন উমরাহ করতে সৌদি আরবে। আমাকে ফোন দিয়ে বলছেন তিনিও নাকি খেলা দেখছেন। আমি তো অবাক! উনাকে বললাম,’আপনি না উমরাহতে?’ উনি বললেন,’উমরাহ শেষ। এখন খেলা দেখছি। ওরা আমায় এয়ারপোর্টে যাওয়ার জন্য বারবার বলছে। আমি ওদের বলে দিয়েছি খেলা শেষ না করে যাচ্ছি না”

“এমনও হয়েছে সংসদ চলছে। আমি ফোন করে বললাম, ‘আপা আসবেন না?’ তিনি চলে এসেছেন”- প্রধানমন্ত্রী কতটা খেলাপাগল সেটা বোঝাতে নাজমুল হাসান পাপন

ছবিই বলে দেয় ক্রিকেটের সাথে প্রধানমন্ত্রীর সম্পর্কটা কতটা মধুর

শুধু জাতীয় দল নয়, প্রধানমন্ত্রী খেলা দেখেন লিগেরও। সচরাচর রেগে না যাওয়া প্রধানমন্ত্রী একবার বিসিবি সভাপতির ওপর রেগে গিয়েছিলেন। সেই ঘটনা শোনাতে গিয়ে পাপন বলেন, “সুপার লিগ চলছে। আমি বাসায় বসে টিভিতে খেলা দেখছি। আপা ফোন করলেন। আমি লিগের খেলা দেখছি শুনেই উনি রেগে গেলেন। কোন চ্যানেলে  খেলা দেখাচ্ছে, তাকে বলিনি কেনো প্রশ্ন করে বসলেন”

নাজমুল হাসান পাপন আরও বেশকিছু ঘটনা শুনিয়েছেন। প্রতিটা ঘটনাই জানান দিয়ে যায় খেলাধুলার প্রতি  কতটা ভালোবাসা প্রধানমন্ত্রীর। এমনকি পাপন এটাও বলেন যে, “ক্রিকেটবোর্ডে আমরা যে যার মতো কাজ করি। কিন্তু, আমাদের সার্বক্ষণিক দিকনের্দেশনা যিনি দিয়ে যাচ্ছেন, তিনি জননেত্রী শেখ হাসিনা”

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img