১০ ডিসেম্বর ২০২২, শনিবার

ক্রিকেটকে ‘না’, বিসিবি কে ‘হ্যাঁ’ বলে দিলেন রাজ্জাক ও নাফীস

- Advertisement -

নির্বাচকের নিয়োগপত্র হাতে পেয়ে টাইগার বাছাইয়ের কাজের জন্য এরই মধ্যে প্রস্তুতি শুরু করেছেন স্পিনার আব্দুর রাজ্জাক। ক্রিকেট অপারেশন্স বিভাগের চাকুরির নিয়োগপত্রের আশায় বসেছিলেন শাহরিয়ার নাফীস। শুক্রবার ক্রিকেট বোর্ডের সাথে চুড়ান্ত আলোচনা শেষে গ্রিন সিগনাল পাওয়ার পরই অবসরের প্রস্তুতি শুরু হয় নাফীসের।

ঢাকা টেস্টের দুর্দশার মাঝেই ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন আব্দুর রাজ্জাক ও শাহরিয়ার নাফীস। টেস্টের তৃতীয় দিন লাঞ্চ ব্রেকে বিসিবি মিডিয়া সেন্টার এরেনায় হয়েছে আনুষ্ঠানিক ঘোষনা।

বিদায় বেলায় বিকেএসপির দুই কোচ নাজমুল আবেদিন ফাহিম ও সারোয়ার ইমরানকে কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন আব্দুর রাজ্জাক। শাহরিয়ার নাফীসের কৃতজ্ঞতা কিশোরবেলার উস্তাদ ওয়াহেদুল গনির প্রতি।

বিসিবির নতুন চাকুরি নিয়ে ক্রিকেটকে নতুন সেবা দিতে পারবেন বলেই দু’জন প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়েছেন।

বিদায় অনুষ্ঠানে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বলেছেন, “খেলার মাঠের মতই বোর্ডের নতুন চাকুরীতে সাকসেসফুল হবেন রাজ্জাক-নাফীস, এগিয়ে নেবেন দেশের ক্রিকেটকে”

২০০৪ সালে একদিনের আন্তজার্তিক ক্রিকেটে অভিষেক হয় স্পিনার আব্দুর রাজ্জাকের। টেস্ট অভিষেক তার দুই বছর পর। সাদা পোষাকে ১৩ ম্যাচ খেলে উইকেট তুলেছেন ২৮টি। ১৫৩ ওয়ানডেতে ২০৭ উইকেট রাজ্জাকের। টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন ৩৪ উইকেট ৪৪টি।

২০০৫ সালে টেস্ট এবং ওয়ানডে অভিষেক হয় শাহরিয়ার নাফীসের। ২৪ টেস্টে ১২৬৭ রান, সেঞ্চুরি একটি , ৭৫ ওয়ানডেতে ২২০১ রান, ৪টি সেঞ্চুরি । বাংলাদেশের প্রথম টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক শাহরিয়ার নাফীস একটাই ম্যাচ খেলেছেন।

নাফীস-রাজ্জাক’কে অলরাউন্ডারের শুভকামনা

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

দেশের ক্রিকেটে অবদান রাখায় বিদায়  বলার দিনে আব্দুর রাজ্জাক ও শাহরিয়ার নাফীসকে সম্মান জানাচ্ছে অলরাউন্ডার।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img