৬ অক্টোবর ২০২২, বৃহস্পতিবার

চেন্নাইয়ের জয় দিয়ে ফিরলো আইপিএল

- Advertisement -

মাঝখানে পেরিয়ে গেছে ১৩৯ দিন, মাঠে গড়ায়নি একটি ম্যাচও। অবশেষে মুম্বাই ইন্ডিয়ানস-চেন্নাই সুপার কিংসের ম্যাচের মধ্য দিয়ে আবারো শুরু হয়েছে আইপিএল। শুরুতেই ম্যাচ থেকে ছিটকে যেতে থাকা চেন্নাই সুপার কিংস ম্যাচশেষে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে ২০ রানে! ইনিংসের শুরুতেই ৮৮* রানের দুর্দান্ত এক ইনিংস খেলেন ওপেনার রুতুরাজ গায়কোয়াড়; জয়টা মূলত এসেছে তার ব্যাটিংয়ে ভর করেই।

মজার ব্যাপার হলো, মে মাসের ২ তারিখে খেলা বন্ধ হওয়ার আগের দিনেই মাঠে নেমেছিল এই দুই চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী; সেই ম্যাচে জয়ী হয়েছিল মুম্বাই। শেষ ওভারে ১৬ রান নিয়ে মুম্বাইকে জয় এনে দিয়েছিলেন ক্যারিবিয়ান তারকা কিরন পোলার্ড।

প্রথম অংশের পর দ্বিতীয় অংশেও জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে পারত মুম্বাই। টসে জিতে ব্যাটিং করতে নেমে শুরু থেকেই ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে চেন্নাই; স্কোরবোর্ডে ২ রান তুলতেই রানের খাতা না খুলে ড্রেসিং রুমের পথ ধরেন দুই বিদেশী ফাফ ডু প্লেসি এবং মইন আলি। প্রথম অংশে দুর্দান্ত খেলা আম্বাতি রায়ডু অ্যাডাম মিলনের বলে চোট পান কনুইয়ে, মাঠ থেকে বেড়িয়ে যান কয়েক মিনিট পার না হতেই। দুই অঙ্কের রান করতে পারেননি সুরেশ রায়না, মহেন্দ্র সিং ধোনিরা। পাওয়ারপ্লের ছয় ওভার শেষে চেন্নাইয়ের সংগ্রহ ছিল ৪ উইকেটে ২৪। দুইটি করে উইকেট নেন অ্যাডাম মিলনে ও ট্রেন্ট বোল্ট।

শুরুর বিপর্যয় কাঁটাতে রবীন্দ্র জাদেজাকে সাথে নিয়ে ইনিংস বড় করার চেষ্টা করেন ওপেনার রুতুরাজ গায়কোয়াড়; দুজনের পঞ্চম উইকেটে জুঁটিতে আসে ৮৫ রান। ব্যক্তিগত ২৬ রানে শততম আইপিএল ম্যাচ খেলতে নামা জাসপ্রিত বুমরাহর বলে ক্যাচ তুলে দিয়ে জাদেজা প্যাভিলিয়নে ফিরলেও, একপ্রান্ত আগলে রেখে ইনিংসকে এগিয়ে নেন গায়কোয়াড়। শতক পূর্ণ করতে না পারলেও চেন্নাই ওপেনারের ৮৮ রানের ইনিংসে ভর করেই নির্ধারিত ২০ ওভার শেষে চেন্নাইয়ের সংগ্রহটা গিয়ে দাড়ায় ১৫৬ রানে। ইনিংসের শেষ দিকে ডোয়াইন ব্রাভোর ৮ বলে ২৩ রানের ইনিংসটা কার্যকরী ভূমিকা পালন করেছে।

১৫৭ রানের জবাবে ব্যাটিং করতে নেমে শুরুটা চেন্নাইয়ের চেয়ে অন্তত ভালো করেছে পোলার্ডের মুম্বাই। ১৮ রানে প্রথম উইকেট হারানোর পর দ্বিতীয় উইকেট হারিয়েছে ৩৫ রানে। পাওয়ারপ্লে শেষ হওয়ার আগে উইকেটের পতন হয়েছে আরেকটি; ৬ ওভার শেষে মুম্বাইয়ের সংগ্রহটাও তাই ৩ উইকেটে ৪১। এরপর ইশান কিষাণ দারুণ শুরুর আভাস দিলেও ব্যক্তিগত ১১ রানেই থামে তার ইনিংস।

অধিনায়ক পোলার্ডকে নিয়ে প্রথম দশ ওভারেই চার উইকেট হারানোর ধাক্কা সামলে উঠার চেষ্টা করেন সৌরভ তিওয়ারি। দুজনের ব্যাট থেকে আসে ২৯ রান; ব্যক্তিগত ১৫ রান করেই প্যাভিলিয়নে ফিরে যান মুম্বাই অধিনায়ক। এরপর একপ্রান্ত দিয়ে সৌরভ চেষ্টা করে গেলেও তাকে যোগ্য সঙ্গ দিতে পারেনি কেউই। সৌরভের ৫০ রানের পরেও মুম্বাইয়ের ইনিংসটা থেমেছে ৮ উইকেটে ১৩৬ রানেই। ৩টি উইকেট নিয়েছেন ডোয়াইন ব্রাভো; ২টি দীপক চাহার।

এই জয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষেও উঠে গেছে চেন্নাই সুপার কিংস।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img