NCC Bank
- Advertisement -NCC Bank
১৫ আগস্ট ২০২২, সোমবার

‘চেষ্টা থাকবে’ পরের ম্যাচটা জয়ের জন্য খেলা: মুশফিক

- Advertisement -

টসে হেরে ব্যাট করতে নেমে বাংলাদেশের সংগ্রহ ১৭১! প্রথম ইনিংস শেষে রানটাকে অনেক বড় মনে হলেও, লঙ্কানরা সেটা টপকে গেছে সাত বল হাতে রেখেই। ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে মুশফিকুর রহিম। প্রতিটা প্রশ্নের জবাবটা দিলেন নিজের খেলা ইনিংসটার মতোই। প্রথম ইনিংসে স্কোরবোর্ডে এত রান তুলে ফেলার পর টাইগাররা কি ভেবেছিল এমন প্রশ্নের জবাবে মিস্টার ডিপেন্ডেবলের জবাব, তারা কখনোই মনে করেনি এই রান জয়ের জন্য যথেষ্ঠ। আসলেই কি তাই?

“দেখেন, টি-টোয়েন্টিতে কোনো রান ই আসলে সেইফ নাহ। টি-টোয়েন্টিতে যেকোনো একটা ইনিংস বা যেকোনো একটা প্লেয়ার বলেন, ম্যাচ জেতাতে পারে। আবার একটা বোলিং স্পেল টুর্নামেন্টে যে কোনো সময়ে ম্যাচ জিতিয়ে দিতে পারে। তো, আমরা কখনোই মনে করিনি এটা এনাফ রান”- ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে মুশফিক

শারজাহর পিচে আইপিএলের শেষদিকে রান কম উঠতে দেখা গেলেও, টাইগারদের ম্যাচে ব্যাটে বল এসেছে বেশ ভালোভাবেই। সুযোগ থাকলেও জিততে পারেনি টাইগাররা। মুশি বললেন ভাল খেলেই জিতেছে লঙ্কানরা, “এই পিচে ১৭০ রান ডিফেন্ড করতে পারি, যদি ভাল ব্যাটিং আর বোলিং করি। সুযোগগুলো যদি কাজে লাগাতে পারি। সেটা দুর্ভাগ্যবশত হয়নি। সব কৃতিত্ব তাদের দেয়া উচিত। তারা ভালো খেলেই জিতেছে”

পরবর্তী ম্যাচগুলোতে জয় নিয়েই মাঠ ছাড়তে চান টাইগার তারকা, “টি-টোয়েন্টিতে ছোট দল বা বড় দল বলতে কিছুই নেই। নির্দিষ্ট দিনে যে ভাল খেলবে তারাই জিতবে। আমি মনে করি, আমাদের বেশ ভাল সুযোগ আছে। আমাদের চেষ্টা থাকবে পরের ম্যাচটা জয়ের জন্য খেলা”

মুশি ব্যাটিং করেন মিডল অর্ডারে। সেখানে ধারাবাহিকভাবে রান করার মতো একটা ব্যাটসম্যানও নেই ক্রিকেটবিশ্বে এমনটাই মনে করেন সাবেক উইকেটকিপার, “টি-টোয়েন্টিতে ধারাবাহিক রান করাটা আসলে সহজ না। টপ অর্ডারে হয়ত কিছুটা সময় পাওয়া যায়, পরে আপনি চান্স নিতে পারেন। কিন্তু, আমাদের মতো  চার, পাঁচ, ছয়ে সম্ভবত বিশ্বের একজনকেও দেখাতে পারবেন না যে ধারাবাহিকভাবে রান করে”

সাকিব আল হাসান প্রথম দুই ওভারেই তুলে নিয়েছিলেন দুই উইকেট। এরপর বাকি ছিল আরো দুই ওভার। কিন্তু, পিচে বাঁহাতি ব্যাটসম্যান ছিল বলেই কি বিশ্বসেরা অলরাউন্ডারকে আনা হয়নি বোলিংয়ে? মুশফিক জনিয়েছেন ব্যক্তিগত মতামত, “এটা আসলে একটা ট্যাকটিকাল বিষয়। এগুলো টিম ম্যানেজমেন্ট ঠিক করে থাকে। বাঁহাতি ব্যাটসম্যানের বেলায় যে বাঁহাতি বোলার বল করতে পারবে না এটা কখনোই আমরা বিশ্বাস করি না। আর, আজকের ম্যাচে যেটা হয়েছে, সাকিবের জায়গায় যে বল করেছে সে কিন্তু একটা সুযোগ তৈরী করেছিল। ঐ সুযোগটা কাজে লাগাতে পারলে হয়তো এরপরে রাইটি ব্যাটসম্যান আসতো, তখন সাকিব আরো কার্যকরী হতে পারতো”

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img