NCC Bank
- Advertisement -NCC Bank
১২ আগস্ট ২০২২, শুক্রবার

টোকিও অলিম্পিক; কেলেব ড্রেসেল একাই জিতেছেন পাঁচ সোনা

- Advertisement -

এথলেটিক্সের ইভেন্টগুলো শুরু হলেই যে যুক্তরাষ্ট্রের পদক জয়ের সংখ্যা বাড়তে শুরু করবে এটা সবারই জানা। সেই জানা কথাই আরেকবার সত্যি করলেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিযোগিরা। পদক তালিকার তিন থেকে তারা উঠে এসেছে দুইয়ে, সমানে পাল্লা দিচ্ছে চীনের সঙ্গে। শুরুতে সবাইকে চমকে দিয়ে পদক তালিকার সবার উপরে ওঠা জাপান ছিটকে যাচ্ছে। টানা দ্বিতীয় দিন কোনো সোনা জিততে পারেনি স্বাগতিকরা। নবম দিনশেষে ২৪টি সোনা নিয়ে সবার উপরে চীন, ২০টি সোনা নিয়ে দুইয়ে যুক্তরাষ্ট্র।

পদক তালিকায় চীনের সঙ্গে পাল্লা দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

টোকিও থেকে মিরপুর, দূরত্ব বহুদূর। সেই দূরত্ব মিলেমিশে গেছে অলিম্পিকে। ছোটভাই হাইজাম্প ইভেন্টে লড়ছিলেন টোকিওতে, আর সেটা টিভিতে দেখছিলেন বড়ভাই। সেই বড়ভাই অস্ট্রেলিয়ান পেসার মিচেল স্টার্ক টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলতে এখন বাংলাদেশে। ছোটভাই ব্র্যান্ডন স্টার্ক যখন স্বর্ণ জয়ের লক্ষ্যে অলিম্পিক ময়দানে নামলেন, মিচেল তখন সতীর্থদের সঙ্গে প্রথম দিনের অনুশীলনে। অনুশীলন শেষে পুরো দলকে নিয়ে ছোটভাইয়ের ম্যাচ দেখছিলেন। জয়ের প্রতিক্ষায় ছিল পুরো দল। ব্র্যান্ডন সোনা জিততে পারেননি, তবে লড়াই করেছিলেন শেষ পর্যন্ত। মৌসুমে নিজের সেরা লাফটাই দিয়েছিলেন ব্র্যান্ডন, ২.৩৫ মিটার লাফিয়েছেন। কিন্তু কাতারের মুতাজ ঈসা বারশিম, ইতালির জিয়ানমারকো তামবেরি ও বেলারুশের মাকসিম নেদাসেকাউ লাফিয়েছিলেন ২.৩৭ মিটার পর্যন্ত। অবাক করা ব্যাপার এই ইভেন্টে আবার সোনা জিতেছেন দুই প্রতিযোগি। কাতারের মুতাজ ঈসা বারশিম, ইতালির জিয়ানমারকো তামবেরি একই উচ্চতা লাফিয়ে জিতেছেন সোনা। পঞ্চম হয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে জুনিয়র স্টার্ককে।

মিরপুরে অনুশীলন শেষে ছোটভাই ব্র্যান্ডন স্টার্কের ম্যাচ দেখছেন মিচেল স্টার্ক ছবি: টুইটার

১০০ মিটার স্প্রিন্ট আর উসাইন বোল্ট, ছিলেন একে অপরের সমার্থক। সর্বকালের সেরা স্প্রিন্টার উসাইন বোল্ট রিও অলিম্পিকেই অবসর নিয়েছেন, সঙ্গে তৈরি হয়েছিল নতুন কারো সোনা জয়ের সম্ভাবনা। তবে যিনি সোনা জিতেছেন সেই ইতালির মার্চেল ইয়াকবসকে কেউ গোনায়ই ধরেনি। ধরবেই বা কী করে? সেমিফাইনালে নিজের হিটে ইউরোপিয়ান অঞ্চলের রেকর্ড ভেঙ্গেছিলেন, তবে ছিলেন না সেরা তিনে। তবে এবার ফাইনালে ৯.৮০ সেকেন্ডে শেষ করে রাজত্ব বুঝে নিয়েছেন এই ইতালিয়ান। ৯.৮৪ সেকেন্ডে দৌড় শেষ করে রৌপ্য জিতেছেন যুক্তরাষ্ট্রের ফ্রেড কারলি। পাঁচ সেকেন্ড সময় বেশি নিয়ে টানা দ্বিতীয়বারের মতো ব্রোঞ্জ জিতেছেন আন্দ্রে দি গ্রাস ।

১০০ মিটারে সোনা জিতেছেন ইতালির ইয়াকবস

এবারের অলিম্পিকে পাঁচ-পাঁচটি সোনা জিতেছেন যুক্তরাষ্ট্রের কেলেব ড্রেসেল। অলিম্পিকের অষ্টম দিনশেষে ড্রেসেলের সোনা ছিল ৩টি, রোববার জিতলেন আরো দুটো স্বর্ণপদক। প্রথমে নামলেন ৫০ মিটার পুরুষ একক ফ্রি স্টাইলে। ২১.০৭ সেকেন্ডে সাঁতার শেষ করে সোনা জিতেছেন ড্রেসেল। এরপর নামলেন ছেলেদের ৪*১০০ মিটার রিলেতে, সেখানে বিশ্বরেকর্ড গড়ে সোনা জিতেছে যুক্তরাষ্ট্র। সোনা জয়ের পথে ড্রেসেল, রায়ান মারফি, মাইকেল অ্যান্ড্রু এবং জ্যাক অ্যাপল সময় নিয়েছেন মাত্র ৩ মিনিট ২৬.৭৮ সেকেন্ড।

আর্টিস্টিক জিমন্যাস্টিকসে ৪১ বছরের রেকর্ড গড়েছেন ব্রিটেনের ম্যাক্স হোয়াইটলক। গত চার দশকে এই প্রথম কোনো প্রতিযোগি সোনা ধরে রাখতে পেরেছেন। পমেল হর্স ইভেন্টের পুরুষ এককে সোনা জিতলেন হোয়াইটলক। রৌপ্য জিতেছেন চাইনিজ তাইপের কাই চি লি, ব্রোঞ্জ গেছে জাপানের কাজিমা কায়ার ঘরে।

আট বছর পর টেনিসের পুরুষ এককে নতুন স্বর্ণপদকজয়ীকে দেখল অলিম্পিক। আগের দুই আসরে সোনা জিতেছিলেন ব্রিটেনের অ্যান্ডি মারে। মারে ইনজুরির কারনে নাম প্রত্যাহার করে নেওয়ায় এবং বর্তমান নাম্বার ওয়ান নোভাক জোকোভিচ বাদ পড়ায় স্বর্ণ জিতেছেন জার্মান তারকা আলেক্সান্দার জভেরেভ।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img