১০ ডিসেম্বর ২০২২, শনিবার

ইনিংস বড় করতে পারলেন না সাকিবও!

- Advertisement -

এই সিরিজ থেকে নিয়মিত অধিনায়ক হিসেবে নেতৃত্ব দিচ্ছেন তামিম ইকবাল। ব্যাটিংও করছেন নেতার মতোই। প্রথম দুই ম্যাচে করেছিলেন ৪৪ এবং ৫০। এই ম্যাচেও হাফ সেঞ্চুরি পেয়েছেন। ৬৪ রান করে আলজারি জোসেফের শিকার হন। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে সাকিব আল হাসান ফিরেছেন এই সিরিজ দিয়ে। নিজের সেরা ফর্মেও ফিরছেন ধীরে ধীরে। হাফ সেঞ্চুরিও পেয়ে গেছেন। তবে ইনিংস বড় করতে পারেননি। তামিমের পথ ধরেছেন অর্ধশতকের পরই। রেফারের স্লো বল সাকিব বুঝে উঠার আগেই মিডল স্ট্যাম্পে আঘাত করে। ৫১ রান করে আউট হন।

তার আগে বাংলাদেশের শুরুটা হয়েছিল লিটন-শান্তকে হারিয়ে। আগের দুই ম্যাচে লিটন দাসের রান ছিল ১৪ ও ২২। আর তৃতীয় ম্যাচে এসে শূন্যতেই আউট। ওপেনিংয়ে তামিম ইকবালে যোগ্য সঙ্গী হিসেবে নিজের অবস্থানকে দুর্বল করে ফেলছেন এই ওপেনার। প্রথম ওভারের পঞ্চম বলে আল জারি জোসেফের এলবিতে কাটা পড়েন লিটন। আর নাজমুল হোসেন শান্ত কি লম্বা সময় দলের বাইরে যাওয়া নিশ্চিত করে ফেললেন এই ম্যাচ দিয়ে। পরপর তিন ম্যাচে সুপার ফ্লপ। সাকিব আল হাসানের পছন্দের জায়গা তিন নাম্বারে জায়গা পেয়েও শান্ত আস্থার প্রতিদান দিতে পারলেন না। ৩০ বলে ২০ রান করে আউট হয়েছেন। ১২ রানে জীবন পেয়েও ইনিংস বড় করতে আবারও ব্যর্থ এই ব্যাটসম্যান। রিভিউ নিয়েও বাঁচতে পারেননি। সামনে নিউজিল্যান্ড সিরিজ আছে। তিন নাম্বার জায়গায় কি আবারও পরীক্ষা চালাবে নাকি শান্তকেই বিবেচনায় নিবে বাংলাদেশ টিম ম্যানেজমেন্ট! সেটা সময়ই বলে দিবে। ৪০ ওভার শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ চার উইকেটে ১৯৭ রান।

 

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img