৬ অক্টোবর ২০২২, বৃহস্পতিবার

দল হারলে সব দোষ কোচের: শাস্ত্রী

- Advertisement -

বিশ্বকাপের আগেই ঠিক হয়েছিল, ভারতীয় ডাগআউটে এটাই হতে যাচ্ছে রবি শাস্ত্রীর শেষ অ্যাসাইনমেন্ট। তার উপরে টুর্নামেন্টের মাঝখানেই তার উত্তরসরি হিসেবে রাহুল দ্রাবিড়ের নাম ঘোষণা করে বিসিসিআই। ভারতকে এনে দিতে পারেননি কোন বৈশ্বিক শিরোপা সঙ্গে এবারের বিশ্বকাপে খারাপ পারফর্ম্যান্সের কারণে শাস্ত্রীর উপর থেকে ভারতীয় সমর্থকদের রোষানলের আগুন যেন থামছেই না। পদে পদে তাঁকে পোহাতে হচ্ছে ভোগান্তি! বিরক্তির চরম পর্যায়ে পৌঁছে গিয়ে শাস্ত্রী জানালেন, ভারত দলে একজন কোচ ব্যর্থ হলে তাঁকে কতোখানি খারাপ পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যেতে হয়।

“ভারতে ক্রিকেট হলো একটি ধর্ম। আপনি যখন ৫টি ম্যাচ জিতবেন তারপর ১টি ম্যাচে হেরে যাবেন, সাথে সাথেই পকেট থেকে কলম এবং পিস্তল বেরিয়ে আসবে। কিছু কিছু সময় এটি বেদনাদায়ক। এই কষ্টগুলোকে আপনার বুকের মধ্যেই পুষে রাখতে হবে”

ভারতের সাবেক এই কোচ ২০১৪ থেকে কাজ করে আসছিলেন ভারত ক্রিকেট দলের ডিরেক্টর পদে। ২০১৬ সালে পদ থেকে বাদও পড়তে হয়েছে তাঁকে। ২০১৭ সালে আবারও ডাক পড়ে বিসিসিআইয়ের তরফ থেকে, এবার প্রধান কোচের ভুমিকায়। সমালোচকদের উদ্দেশ্যে এবার শাস্ত্রী বলেছেন, তার সময় হয়েছে সবকিছু বিচার করার।

“গত সাত বছর ধরে মানুষ শুধু আমার সমালোচনাই করে গেছে। এখন আমার সময় এসেছে বিচারকের আসনে বসার এবং কিছু মানুষকে বিচার করার”

দল জিতলে যেমন তালি পাওয়া যায়, হারলেও শুনতে হয় গালি। তবে সবকিছুই হওয়া উচিৎ একটি নির্দিষ্ট সীমার মধ্যে। ভারত দলের সমর্থকদের সমালোচনার ধরণ এবং অসহিষ্ণু আচরণ শাস্ত্রীর কাছে প্রশ্নবিদ্ধ। দল খারাপ খেললে সব দায় কোচেরও নয় বলে মনে করেন ক্রিকেটের সাবেক এই তারকা। এগিয়ে যাওয়ার পথে সমালোচকদের এড়িয়ে যাওয়ার পরামর্শ দিলেন সাবেক এই কোচ।

“আমরা এতো এতো ম্যাচ জিতেছি যে মানুষ আমাদের হেরে যাওয়া মুখ দেখতে অভ্যস্ত নয়। তখন সব দোষ কোচের ঘাড়ে এসেই পড়ে। আপনাকে সকল বাধা অতিক্রম করে যেতে হবে, পিছিয়ে পড়লে চলবে না। আপনাকে নিশ্চিত করতে হবে যে,দল তাদের সেরাটা দিয়েই খেলছে। সমালোচনা একপাশে রেখে আপনাকে এগিয়ে যেতেই হবে”

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img