১৭ জুলাই ২০২৪, বুধবার

পর্তুগালের জার্সিতে কী শেষ ম্যাচ খেলে ফেললেন রোনালদো?

- Advertisement -

কয়েকদিন আগেই এটিই শেষ ইউরো বলে মন্তব্য করেছিলেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। টুর্নামেন্টটা রাঙাতে পারেননি পর্তুগিজ সুপারস্টার। কোয়ার্টার ফাইনালে ফ্রান্সের কাছে টাইব্রেকারে হেরে শেষ হয়েছে রোনালদোর ইউরো অধ্যায়। সেই সাথে প্রথমবারের মতো মেজর কোনো টুর্নামেন্টে গোলবিহীন থাকলেন তিনি। সব মিলিয়ে গুঞ্জন উঠেছে, তবে কী পর্তুগালের জার্সিতে শেষ ম্যাচ খেলে ফেললেন রোনালদো। তবে এমনটা ভাবছেন না দলটির কোচ রবার্তো মার্তিনেজ।

ফ্রান্সের বিপক্ষে টাইব্রেকারে হারের পর রোনালদোর অবসরের বিষয়ে কথা বলেছেন মার্তিনেজ। পর্তুগালের জার্সিতে এটিই রোনালদোর শেষ ম্যাচ নয় বলে মনে করেন তিনি।

মার্তিনেজ বলেন, “ম্যাচ শেষ হওয়ার পরপরই এটা নিয়ে কথা বলাটা একটু আগেভাগেই হয়ে যায় এবং ব্যক্তিগত পর্যায় থেকে এ বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি”

রোনালদোর অবসর প্রসঙ্গে কথা বলেছেন পর্তুগালের কোচ রবার্তো মার্তিনেজ

এবারের ইউরো ভুলে যাওয়ার মতো কাটিয়েছেন রোনালদো। টাইব্রেকার ছাড়া বল জালে জড়াতে পারেননি তিনি। স্লোভেনিয়ার বিপক্ষে পেনাল্টি মিস করে তো কেঁদেই দিয়েছিলেন পর্তুগিজ সুপারস্টার। ইউরোর ইতিহাসে অনাকাঙ্ক্ষিত এক রেকর্ডের সাথে নাম জড়িয়েছেন রোনালদো। ইউরোর এক আসরে গোলে সর্বোচ্চ ১০টি শট নিয়ে গোল করতে না পারা দ্বিতীয় ফুটবলার তিনি। ২০১৬ সালটা এমন কাটিয়েছিলেন বেলজিয়ামের মিডফিল্ডার কেভিন ডি ব্রুইনা। নিশ্চিত করেই ২০২৪ ইউরো ভুলে যেতে চাইবেন রোনালদো।

এর আগে শেষ ষোলোতে স্লোভেনিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের পর এটিই শেষ ইউরো বলে জানিয়েছিলেন রোনালদো। সেই ম্যাচ শেষে তিনি বলেছিলেন, “কোনো সন্দেহ নেই অবশ্যই এটাই শেষ ইউরো। তবে আবেগ ছুঁয়ে যাচ্ছে না। ফুটবলের সবকিছুই আমাকে প্রভাবিত করে। খেলাটির প্রতি এখনো আমার যে উৎসাহ, দর্শকের আগ্রহ, পরিবারকে পাওয়া, লোকজনের ভালোবাসা…ব্যাপারটা আসলে ফুটবল–বিশ্ব ছেড়ে যাওয়া নয়। আমার জেতার বা করার জন্য আর কীই-বা বাকি আছে?”

এটিই শেষ ইউরো বললেও পর্তুগালের জার্সি এই টুর্নামেন্টের পরেই তুলে রাখবেন কিনা নিশ্চিত করেননি রোনালদো। ২০২৬ বিশ্বকাপের সময় আল নাসর তারকার বয়স হবে ৪১ বছর। দেখা যাক, রোনালদো এখনি আন্তর্জাতিক ফুটবল থেকে অবসর নেন কিনা।

 

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img