২৮ জানুয়ারি ২০২৩, শনিবার

প্রেস কনফারেন্সে নাসুমের অসহায় আত্মসমর্পণ

- Advertisement -

খেলায় জয় পরাজয় থাকবেই। কিন্তু টানা দুই ম্যাচে বাংলাদেশ দল যেভাবে হেরেছে, খেলার ধরণ নিয়ে প্রশ্ন ওঠাটাই স্বাভাবিক। ম্যাচ পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনেও উঠেছে সেই প্রশ্ন। টাইগার স্পিনার নাসুম আহমেদ বলেছেন চেষ্টা করছেন সকলেই। কিন্তু, পাচ্ছেননা সফলতার দেখা।

“সবারই তো ইচ্ছে থাকে ভালো কিছু করার। চেষ্টা করতেছি, কিন্তু পারতেছি না। আসলে আমাদের দ্বারা হচ্ছে না। এটা আমাদের দুর্ভাগ্য”

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচের আগে ধারণা করা হচ্ছিল আবুধাবির পিচটা হবে মিরপুরের মতো। কিন্তু, নাসুম সেই কথাটাকে কোনো পাত্তাই দিলেন না, “আপনারা বলতেছেন বাংলাদেশের উইকেট। আসলে উইকেট ঐরকম না। স্পিনাররা টার্ন পাচ্ছিল না। কিন্তু চেষ্টা করছি যাতে ভালো করা যায়। ঐ চেষ্টাতেই ছিলাম এই রানেই যাতে ফাইট করতে পারি। হয়নাই আমাদের দ্বারা।

দলের ব্যাটিংটা নিয়ে যে কিছুটা চিন্তিত টাইগার শিবির সেটা স্পষ্ট নাসুম আহমেদের কথাতেই, “আমাদের মধ্যে কথা হয়। আমরা তো অবশ্যই কথা বলি, যেহেতু আমাদের দ্বারা হচ্ছে না। প্রথম ছয় ওভারে আমরা রান তুলতে পারতেছিনা। এজন্য আমরা একটু ব্যাকফুটে চলে যাচ্ছি। রানও তুলতে পারতেছিনা, উইকেটও চলে যাচ্ছে। এটা নিয়ে কথা হয়। সবার মধ্যেই চেষ্টা আছে ভালো কিছু করার। হচ্ছে না আসলে, এজন্যই একটু সমস্যা হচ্ছে।“

টানা দুই ম্যাচ হারলেও টাইগার স্পিনার হারাচ্ছেন না আশা, “আমাদের আরো তিনটা ম্যাচ আছে। একটা ম্যাচ জিতলেই বাকি দুটোতেও জিততে পারবো।“

গত কয়েকদিনে আলোচনা সমালোচনা কম হচ্ছে না টাইগারদের নিয়ে। কিন্তু, নাসুম আহমেদ জানালেন এসব নিয়ে ভাবছেন না তারা, “আসলে বাইরে কি হচ্ছে না হচ্ছে এসব নিয়ে আমরা এত ভাবতেছি না। আমরা পারফর্ম করবো কিভাবে ঐটা নিয়েই চিন্তা করতেছি। ঐভাবেই আমরা প্র্যাকটিস করতেছি।“

শেষ তিন ম্যাচে জয় পেতে হলে কি করতে হবে টাইগারদের সেটাও জানিয়ে দিয়েছেন বাঁহাতি এই স্পিনার, “ভালো খেলতে হবে। আর কি! ভালো খেলেই জিততে হবে আর কি।“ সেইসাথে জানিয়েছেন দলের কেউই ভয় পাচ্ছে না, “ভয় থাকলে ক্রিকেট হয় না। আমাদের কারোর মধ্যেই ভয় নেই।“

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img