১৭ জুলাই ২০২৪, বুধবার

ব্যাটে-বলে দুর্দান্ত টাইগাররা, সিরিজে সমতা ফেরাল শান্তর দল

- Advertisement -

দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে শ্রীলঙ্কাকে ৮ উইকেটের ব্যবধানে হারিয়েছে বাংলাদেশ। লঙ্কানদের বিপক্ষে জিতে সিরিজে সমতা ফেরাল নাজমুল হোসেন শান্তর দল। তৃতীয় টি-টোয়েন্টি তাই পরিণত হল অলিখিত ফাইনালে।

১৬৬ রানের লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা যেমন করার প্রয়োজন ছিল ঠিক তেমনটাই করেছেন সৌম্য সরকার ও লিটন কুমার দাশ। পাওয়ারপ্লেতে ৬৩ রান তুলে দুর্দান্ত শুরু এনে দেন তারা। তবে বড় ইনিংস খেলতে পারেননি দুজনের কেউই। সৌম্য ফিরেছেন ২২ বলে ৫ বাউন্ডারিতে ২৬ রান করে। লিটন করেছেন ২৪ বলে ৫ বাউন্ডারি ও ১ ছক্কায় ৩৬ রান।

দুই ওপেনার ফিরে যাওয়ার পর দায়িত্বশীল ব্যাটিং করেছেন নাজমুল হোসেন শান্ত ও তাওহীদ হৃদয়। পরিস্থিতি বুঝে খেলেছেন দুজন। শেষ পর্যন্ত দলের জয় নিয়েই মাঠ ছেড়েছেন তারা। শান্ত ৩৮ বলে ৫৩ রান করে ছিলেন অপরাজিত, হৃদয়ের সংগ্রহ ২৫ বলে অপরাজিত ৩২ রান।

শ্রীলঙ্কার হয়ে ৩.৪ ওভারে ২৮ রান দিয়ে ২ উইকেট নিয়েছেন মাথিশা পাথিরানা।

৩৮ বলে ৫৩ রান করে অপরাজিত ছিলেন নাজমুল হোসেন শান্ত

টসে জিতে আগে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেন শান্ত। টাইগার অধিনায়কের লক্ষ্যটা পরিষ্কার, উইকেট থেকে যতটা পারা যায় সুবিধা আদায় করে নেওয়া। ইনিংসের প্রথম ওভারেই শরীফুল দারুণ সুইং আদায় করে টাইগার অধিনায়কের সিদ্ধান্তের যথার্থতা প্রমাণ করেছেন। প্রথম ওভার থেকে কোনো রান নিতে পারেনি শ্রীলঙ্কার ওপেনার আভিষ্কা ফার্নান্দো।

দ্বিতীয় ওভারেই বাংলাদেশকে প্রথম ব্রেক-থ্রু এনে দিয়েছেন তাসকিন। তবে নিজের দ্বিতীয় ওভারে বেশ খরুচে ছিলেন ডানহাতি এ পেসার। তিন নম্বরে উইকেটে আসা কামিন্দু মেন্ডিস ১৭ রান তুলেছেন তাসকিনের করা ইনিংসের চতুর্থ ওভার থেকে। শেখ মাহেদী হাসানও পারেননি নতুন বলে বাংলাদেশকে উইকেট এনে দিতে। মুস্তাফিজুর রহমানও ছিলেন খরুচে।

সময় যত গড়িয়েছে ততই ম্যাচে ফেরার চেষ্টা করেছে টাইগার বোলাররা। তবে বাংলাদেশকে ব্রেক-থ্রু এনে দিয়েছেন পার্টটাইমার সৌম্য সরকার। ২২ বলে ৩৬ রান করা কুশল মেন্ডিসকে ফিরিয়েছেন এ মিডিয়াম পেসার। এরপর মাহেদী-রিশাদের যুগলবন্দিতে কামিন্দু মেন্ডিস রান আউট হয়ে প্যাভিলিয়নে ফিরলে স্বস্তি আসে টাইগার শিবিরে। ১৪ বলে ১ বাউন্ডারি ও ৩ ছক্কায় ২৮ রান করা চারিথ আসালাঙ্কাকে ফিরিয়েছেন মাহেদী।

শ্রীলঙ্কা ১৬৫ রানের সংগ্রহ পেয়েছে দাসুন শানাকা ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুসের কল্যাণে। ১৮ বলে ২০ রান করে অপরাজিত ছিলেন শানাকা, ২১ বলে ম্যাথুসের সংগ্রহ অপরাজিত ৩১ রান।

বাংলাদেশের হয়ে একটি করে উইকেট নিয়েছেন তাসকিন আহমেদ, মুস্তাফিজুর রহমান, শেখ মাহেদী হাসান ও সৌম্য সরকার। উইকেট না পেলেও দারুণ বোলিং করেছেন শরীফুল ইসলাম। ৪ ওভারে মাত্র ২০ রান দিয়েছেন তিনি।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img