৩ মার্চ ২০২৪, রবিবার

ব্র্যাডম্যানের প্রস্থানের কুড়ি বছর আজ

- Advertisement -

শেষবারের মতো ব্যাট হাতে নামছেন স্যার ডন ব্র্যাডম্যান। আজ থেকে ঠিক ৭২ বছর আগে ১৪ই আগস্ট বিকেল জন্ম দিয়েছিল এমনই এক উপলক্ষ্যের। একই দিনে পর্দা নামবে লন্ডন অলিম্পিকের, স্বাগতিক দল সিরিজ খুইয়েছে আগেই, তাতে কী! আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে শেষবারের মতো ক্রিকেট ইতিহাসের সর্বকালের সেরা ব্যাটসম্যানকে মাঠ থেকে দেখার মোহ জয় করেছিল সব লাভ-ক্ষতি, যদি-কিন্তুর হিসেব। দ্য ওভালে ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়া শেষ টেস্টের প্রথম দিনে ছিল মাঠ ভর্তি দর্শকের উপস্থিতি।

টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিল ইংল্যান্ড। গোটা সিরিজের ব্যর্থতা বজায় রেখে স্বাগতিক দল অল-আউট মাত্র ৫২ রানে। প্রথম দিনেই তাই ব্যাট করার সুযোগ পেয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া। শুরুতেই সিড বার্ন্স এবং আর্থার মরিসের দারুণ উদ্বোধনী জুটি, দুজনে মিলে যোগ করলেন ১১৭ রান। ব্যক্তিগত ৬১ রানে বার্ন্স ফিরে যাওয়ার পর এলো সেই কাঙ্ক্ষিত মুহূর্ত। ব্র্যাডম্যান প্যাভিলিয়ন ছেড়ে হাঁটতে শুরু করলেন দ্য ওভালের উইকেটের পথে।

মাঠে উপস্থিত দর্শকেরা দাঁড়িয়ে সম্মান জানালেন অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ককে, প্রতিপক্ষ দল ব্র্যাডম্যানকে সংবর্ধনা দিল ‘থ্রি চিয়ার্স’-এর মাধ্যমে। যাকে ঘিরে এতসব আয়োজন তার শেষ ইনিংসের স্থায়িত্ব ছিল মাত্র দুই বল, প্যাভিলিয়নে ফিরতে হলো দিনের খেলা শেষে হওয়ার মাত্র ৪০ মিনিট আগে। ইংল্যান্ড ইনিংস ব্যবধানে হেরে যাওয়ায় ১৯৪৮ সালের ১৪ই আগষ্ট হয়ে রইলো টেস্ট ক্রিকেটে ব্যাট হাতে ব্র্যাডম্যানের শেষ দিন।

সেদিন ইংলিশ লেগ-স্পিনার এরিক হলিসের প্রথম বলটা ব্র্যাডম্যান যে ঠিকমতো চোখেই দেখেননি, তা তিনি পরবর্তীতে নিজেই জানিয়েছিলেন। ক্যারিয়ারের শেষ ইনিংসের আবেগে আক্রান্ত হয়েছিলেন ডন নিজেও।

আমি সেদিন ভালো করতে চেয়েছিলাম। কিন্তু সেটা হয়নি। আমাকে যে সংবর্ধনা দেয়া হয়েছিল তাতে আমি খানিকটা আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলাম। সেদিন হলিসের প্রথম বলটা ঠিকমতো দেখেছিলাম কিনা আমি নিশ্চিত নই।

দ্য ওভালে সেদিনের ব্র্যাডম্যানের করা শুণ্য পেয়েছে অমরত্ব। সাধারণ শূন্য হয়ে উঠেছে অসাধারণ। ব্যাপারটা হয়তো সবচেয়ে ভালো উপলব্ধি করতে পেরেছিলেন ব্র্যাডম্যানের সঙ্গে উইকেটে থাকা আর্থার মরিস। পরিবর্তীতে দেয়া মরিসের সাক্ষাৎকারে তা স্পষ্ট।

আমি সবসময় মানুষকে বলি আমি সেখানে ছিলাম। তারা আমাকে জিজ্ঞেস করে, আপনি কি খেলেছিলেন? আমি বলি, হ্যা,আমি ১৯৬ করেছিলাম।

ব্র্যাডম্যান সেদিন ওভালে ফিরেছিলেন শূন্য হাতে। যা কেউ কল্পনায়ও চিন্তা করেনি। কারণও সঙ্গত। একই মাঠে তার আগের তিনটি ইনিংস ছিল ২৩২, ২৪৪, ৭৭ রানের। ব্র্যাডম্যান যখন উইকেটে আসলেন তখন আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তার রান ৬৯৯৬, থেমেছেন সেখানেই। সবমিলিয়ে ৭০ বার বোলার তার উইকেট নিতে সক্ষম হয়েছে, শেষবারেরটা ঐতিহাসিক, ৭ হাজার রান থেকে যে ডন ছিলেন মাত্র ৪ রান দূরে।

বর্তমান সময়ে পরিসংখ্যানকে যথেষ্ট গুরত্ব দেওয়া হয়। তবে তখন সময়টা এমন ছিল না। নয়তো ১০১.৩৯ গড় নিয়ে ব্যাটিং করতে নামা ব্র্যাডম্যান কিংবা আশেপাশের কেউ জানতেনই না তার গড় শতকের ঘরে রাখতে প্রয়োজন ছিল মাত্র ৪ রানের। ডন শূন্য রানে আউট হলেও অবশ্য তার গড় একশর ঘরে থাকতো যদি না আগের টেস্টে নীল হার্ভির চারে জয় নিশ্চিত করতো অস্ট্রেলিয়া। সেই ম্যাচে ব্র্যাডম্যান অপরাজিত ছিলেন ১৭৩ রানে। হার্ভি পরিবর্তীতে ব্র্যাডম্যানের গড় শতক না ছোঁয়ার কারণ হিসেবে দাঁড় তার ঐ বাউন্ডারিকেই।

আমাদের ম্যাচটি জিততে ৩৪০ মিনিটে ৪০৪ রান করতে হতো। সৌভাগ্যক্রমে আমি সেদিন মরিস এবং ব্র্যাডম্যানের অসাধারণ জুটির স্বাক্ষী হতে পেরেছিলাম। আমি যখন ব্যাট করতে নামলাম তখন মাত্র ৪ রান প্রয়োজন ছিল এবং সাধারণ সময়ের মতো খেলেই বাউন্ডারি পেয়েছিলাম। এই কারণে তার গড় ১০০ না হওয়ার দায়ভার কিছুটা আমার ওপরও বর্তায়। কারণ আমি যদি সেই চারটা না মারতাম তবে হয়তো ব্র্যাডম্যানের গড় ১০০ থাকতো। আমি মেনে নিচ্ছি, এটা আমারই ভুল।

ব্র্যাডম্যান তার টেস্ট অভিষেকে দুই ইনিংসে করেছিলেন যথাক্রমে ১৮ এবং ১ রান। অভিষেক টেস্টে ব্যর্থতার পর বাদ পড়েছিলেন দ্বিতীয় টেস্ট থেকে। অস্ট্রেলিয়ার ১২৪তম টেস্ট ক্রিকেটার পরবর্তীতে যে হয়ে উঠবেন কোনো দ্বিমত ছাড়াই সর্বকালের সেরা ব্যাটসম্যান তা সৃষ্টিকর্তা ছাড়া জানার সুযোগ ছিল না কারও।

নেফারতিতি অভিমানে হারিয়ে যায়, জীবনানন্দ ট্রামের চাপায় বনলতা সেনের মোহ ত্যাগ করে পরপারে পাড়ি জমায়, ব্রাডম্যানের শেষটা ঘীরে থাকে মাত্র ৪ রানের আক্ষেপ। তবে আসলেই কি আক্ষেপ? যদি তাই হতো তবে এত বছর পরেও কেন কী-বোর্ডের শব্দে ফিরে আসছেন ব্রাডম্যান, সাধারণ শূন্য ফিরে আসছে ক্রিকেট ইতিহাসের অংশ হয়ে! কে জানে আজ হয়তো স্বর্গে ডাব্লিউ জি গ্রেস, ভিক্টর ট্রাম্পার, উইলফ্রেড রোডসরা আয়োজন করছেন ব্রাডম্যানের টেস্ট থেকে ৭২ তম বিদায় বার্ষিকী! কে জানে ব্র‍্যাডম্যান কোথায় আছেন, ক্রিকেট ইতিহাসের সর্বাকালের সেরা ব্যাটসম্যান কোথায় হারিয়ে গেছে।

প্রয়াণ দিবসে ব্রাডম্যানের প্রতি অলরাউন্ডারের শ্রদ্ধা….

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img