৩১ জানুয়ারি ২০২৩, মঙ্গলবার

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে সানচো কোথায় খেলবেন?

- Advertisement -

২০২১-২২ মৌসুমকে সামনে রেখে গ্রীষ্মকালীন দলবদলে সবচেয়ে সরব দলগুলোর একটা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড। অনেক বড় তারকার দলবদলের সঙ্গে জড়িয়ে আছে ইংলিশ ক্লাবটির নাম। সেই তালিকায় আছেন রাফায়েল ভারান থেকে শুরু করে হ্যারি কেইন এমনকি আঁতোয়া গ্রিজম্যানেরও নাম। তবে ইতোমধ্যেই ৭৩ মিলিয়ন ইউরো ট্রান্সফার ফি দিয়ে জার্মান ক্লাব বরুশিয়া ডর্টমুন্ড থেকে নিজেদের ডেরায় ভিড়িয়েছে জ্যাদন সানচোকে। তবে প্রশ্ন একটাই, দুর্দান্ত ফর্মে থাকা ইংলিশ উইঙ্গারকে কোথায় খেলাবেন ইউনাইটেড কোচ ওলে গানার সোলকায়ের?

                       বরুশিয়া ডর্টমুন্ড থেকে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে জ্যাদন সানচো। ছবি: ইন্টারনেট

ডর্টমুন্ড কিংবা ইংল্যান্ড জাতীয় দল, সানচো খেলে থাকেন উইংয়ে। বল নিয়ে বক্সের ভেতরে ঢোকা কিংবা সতীর্থদের উদ্দেশ্যে ক্রস করাতে তিনি সিদ্ধহস্ত। সবধরনের প্রতিযোগিতামূলক ফুটবলে গত মৌসুমে ৩৬টি গোলে সরাসরি অবদান ছিল সানচোর। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের বর্তমান খেলোয়াড়দের মধ্যে তার থেকে গোলে বেশি অবদান শুধুই ব্রুনো ফের্নান্দেজের। ৪৬টি গোলে সরাসরি অবদান ছিল পর্তুগিজ মিডফিল্ডারের। রেড ডেভিলদের মধ্যে সানচোর চেয়ে বেশি অ্যাসিস্ট আর কারো নেই। ইউনাইটেড কোচ ওলে গানার সোলকায়েরের কপালে নিশ্চয়ই চিন্তার ছাপ, কোথায় খেলাবেন সানচোকে। তবে ফ্রন্টলাইনে এত এত অপশন থাকার কারনে সেই চিন্তা নিশ্চয়ই খুশির চিন্তাই হবে।

                   রাইট উইং কিংবা লেফট উইং, মাঠের দু প্রান্তেই সমানভাবে কার্যকরী সানচো। ছবি: ইন্টারনেট

রাইট উইং কিংবা লেফট উইং, মাঠের দু প্রান্তেই সমানভাবে কার্যকরী সানচো। চার মৌসুম ডর্টমুন্ডে কাটিয়েছেন, ৪-২-৩-১ ফরমেশনে দুই উইংয়েই দুরন্ত খেলেছেন সানচো। তবে গোল করায় তুলনামূলক বেশি সফল ছিলেন লেফট উইংয়ে, কারনটা অবশ্য তার ডান পায়ের শক্তিমত্তা। মাঠের বাঁ প্রান্ত থেকে ভেতরে ঢুকে ডান পাঁয়ে শট নিয়ে গোল করা, ডর্টমুন্ডে সানচো এমনই ছিলেন। ডর্টমুন্ডে সানচো রাইট উইংয়ে প্রায় সাড়ে পাঁচ হাজার মিনিট খেলেছেন, লেফট উইংয়ে খেলেছেন তিন হাজারের বেশি মিনিট। রাইট উইংয়ে ২৪ গোলের পাশাপাশি লেফট উইংয়ে ২০ গোল। মাঠের ডানপাশে যেখানে প্রতি গোলের পেছনে লেগেছে ২১৯ মিনিট, বাঁ পাশে লেগেছে ১৫৫ মিনিট।

২০১৮-১৯ মৌসুম থেকে প্রতি ৮৭ মিনিটে সরাসরি গোলে অবদান রেখেছেন সানচো, যেখানে ইউনাইটেড খেলোয়াড়দের মধ্যে তার কাছাকাছি, ১৩২ মিনিট প্রতি গোলে অবদান রেখেছেন মার্কাস রাশফোর্ড। গত তিন মৌসুমে সরাসরি গোলে তার থেকে বেশি অবদান নেই আর কোনো ইংলিশ ফুটবলারের। লেফট উইংয়ে গোল করায় বেশি মনযোগী হলেও রাইট উইংয়ে তার মূল কাজ একজন প্লেমেকার হিসেবেই। তবে সোলকায়েরের হাতে দুই উইংয়ে মার্কাস রাশফোর্ড এবং ম্যাসন গ্রিনউডের মতো অপশন আছে। এখন কোথায় খেলবেন সানচো?

গোল করায় তুলনামূলক বেশি সফল লেফট উইংয়ে।

সেন্টার ফরোয়ার্ড পজিশনে এডিনসন কাভানি, মার্শিয়ালের মতো খেলোয়াড় আছেন। তাই সেখানে যে সানচো খেলবেন না এটা মোটামুটি নিশ্চিত। দুই উইংয়ে খেলানো নিয়েও আছে আছে সন্দেহ। কেননা সবশেষ মৌসুমে রাশফোর্ড এবং গ্রিনউড, দুজনেই গত মৌসুমে খুব ভাল খেলেছেন। তবে গত মৌসুমে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে সবার সেরা ব্রুনো ফের্নান্দেজ। তিন ফরোয়ার্ডের পেছনে ৪-২-১-৩ ফরমেশনেও তাই সানচোকে খেলানোর সুযোগ নেই। সানচোকে যদি খেলাতেই হয় এবং দলের সব গুরুত্বপূর্ণ পজিশনে ইনফর্ম খেলোয়াড়দের খেলাতে হলে তাহলে ইউনাইটেড কোচ ওলে গানার সোলকায়েরকে নতুন ফরমেশনের আশ্রয় নিতে হবে। সেটা হতে পারে ৪-৩-৩ ফরমেশন।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img