৩ মার্চ ২০২৪, রবিবার

ম্যানচেস্টার সিটি-পিএসজির গতির লড়াই

- Advertisement -

মৌসুমের শুরুতেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ফেভারিট ধরে নেয়া হয়েছিল পিএসজি আর ম্যানচেস্টার সিটিকে। ফেভারিট তকমা গায়ে মেখে ইউরোপ সেরার মঞ্চে শেষ চারে জায়গা করে নিয়েছে তারা। এখনো চ্যাম্পিয়ন্স লিগ না জেতা দুই ক্লাবের একটির হৃদয় ভাঙবে শিরোপার মঞ্চে ওঠার আগেই। হৃদয় ভাঙার শুরুটা হচ্ছে রাত থেকেই। চ্যাম্পিয়ন্স লিগ দ্বিতীয় সেমিফাইনালের প্রথম লেগে বাংলাদেশ সময় রাত ১টায় সিটিজেনদের আতিথ্য দেবে পিএসজি।

কোচ হিসেবে দুইবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয়ের স্বাদ পেয়েছেন পেপ গার্দিওলা। সিটিজেনদের হয়ে এখনো চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জেতা হয়নি তার, এবার সম্ভবনা একদম হাতের নাগালে, কিন্তু কাজটা যে অনেক কঠিন সেটা ভালোই জানা আছে গার্দিওলার। দু’দিন আগেই ওয়েম্বলিতে টানা চতুর্থবার লিগ কাপ শিরোপা জেতার পরও পিএসজির সঙ্গে একটা ব্যাপারে পিছিয়ে থাকার কথা বলছেন কোচ

‘’আমার দলে কিন্তু রোনালদো, মেসি, নেইমার কিংবা এমবাপ্পের মতো খেলোয়াড় নেই, তারা একেক জন ম্যাচ উইনার। আমার যা আছে তা হলো ভারসাম্য, আমি দলে যতই পরিবর্তন আনি না কেন দলের ভারসাম্য কিন্তু নষ্ট হবে না। আমি কোনো একজন ফুটবলারকে নিয়ে কথা বলি না। আমি পুরো দল নিয়ে কথা বলি। সবাইকে বলি মাঠেই তাদের দেখে নেওয়ার জন্য। ম্যাচের আগেও একই কথা বলছি”

উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ চারে মাঠে নামার আগে ব্রাজিলিয়ান পোষ্টারবয় নেইমার আর এমবাপ্পেকে বেশ প্রসংশায় ভাসিয়েছেন সিটির কোচ। পিএসজির এই তারকা ফুটবলারকে থামানোর কোনো কৌশলও জানা নেই তার।

আমি সর্বদা বিশ্বাস করি নেইমার ও এমবাপ্পের যে লেভেলের খেলোয়াড়, তাদের আটকে রাখাটা খুব কঠিন । তাদের আটকাতে পারলেই খেলার মোড় ঘুড়ে যাবে”

মৌসুমে ধারাবাহিক পারফর্ম করা একমাত্র দল ম্যানচেস্টার সিটি। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের শিরোপায় এক হাত দিয়ে রেখেছে দলটি, এখন চোখ চ্যাম্পিয়ন্স লিগের দিকে।

২০১৬ সালে শেষবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে মুখোমুখি হয় দু’দল। কোয়ার্টার ফাইনালের ফিরতি লেগে ১-০ গোলে জিতেছিল ম্যানসিটি। দুই লেগ মিলিয়ে ৩-২ ব্যবধানে জিতে পিএসজিকে বিদায় করে সেমিফাইনালে ওঠে সিটিজেনরা।

পিএসজি কোচ মরিসিও পচেত্তিনো ২০১৯ সালে টটেনহ্যামকে চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে তুলেছিলেন, লিভারপুলের কাছে হেরে ইউরোপসেরার খেতাব জেতা হয়নি পচেত্তিনোর। আর্জেন্টাইন কোচের অধীনে দারুণ পারফর্ম করছে  পিএসজি। বায়ার্নের কাছে গতবার শিরোপা হারানোর মধুর প্রতিশোধ নিয়ে সেমিফাইনালে উঠেছে ফরাসিরা। পচেত্তিনোর হাতে আছে ধারালো অস্ত্র নেইমার আর এমবাপ্প তবে মাঠে নামার আগে গার্দিওলাকেই সেরা বলছেন তিনি

”আমার কাছে সে-ই সেরা। অসাধারণ ফুটবল-মস্তিষ্ক। সময়ে সময়ে ম্যাচ পরিকল্পনা বদলে ফেলেন। আমার সব সময়ই তাকে চ্যালেঞ্জ জানাতে ভালো লাগে। সিটির মতো দলের সাথে জয় পাওয়াটা বেশ কঠিন”

নতুন কোনো দলের হাতেই এবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ট্রফি উঠবে কিনা তা দেখার জন্য অপেক্ষা করতে হবে ফাইনাল পর্যন্ত। তার আগে ফুটবল প্রেমিরা সেমি-ফাইনালের জমজমাট লড়াইগুলো উপভোগ করুক।

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img