২৩ এপ্রিল ২০২৪, মঙ্গলবার

রোমাঞ্চকর জয়ে সিরিজে এগিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া

- Advertisement -

শেষ ওভারে জয়ের জন্য অস্ট্রেলিয়ার প্রয়োজন ছিল ১৬ রান। প্রথম ৩ বলে মাত্র ৪ রান দিয়ে ম্যাচটি জমিয়ে তোলেন টিম সাউদি। তাতে করে স্বাগতিক দশর্করা জয় দেখতে পাচ্ছিলেন। তবে প্রতিপক্ষ দলে যে টিম ডেভিড নামে একজন আছেন সেটা হয়তো তারা ভুলেই গিয়েছিলেন। শেষ ৩ বলে ১২ রানের সমীকরণ মিলিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে ৬ উইকেটের জয় এনে দিলেন ডেভিড। সেই সাথে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল অজিরা।

টসে জিতে আগে ব্যাটিংয়ে নেমে রাচিন রবীন্দ্রর ৩৫ বলে ৬৮ ও ডেভন কনওয়ের ৪৬ বলে ৬৩ রানের উপর ভড় করে ২১৫ রান সংগ্রহ করে নিউজিল্যান্ড। কিউইদের হয়ে ফিন অ্যালেন খেলেছেন ১৭ বলে ৩২ রানের ইনিংস। দলটির প্রথম ৫ ব্যাটারই করেছেন দুই অঙ্কের ঘরে রান।

রান তাড়ায় শুরুটা ভাল করে অস্ট্রেলিয়া। ১৫ বলে ২৪ রানের ছোট্ট কিন্তু কার্যকরী ইনিংস খেলে অজিদের উড়ন্ত শুরু এনে দেন ট্রাভিস হেড। আরেক ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার খেলেছেন ২০ বলে ৩২ রানের ইনিংস।

৪৪ বলে ৭২ রান করে অপরাজিত ছিলেন মিচেল মার্শ

তবে অস্ট্রেলিয়াকে জয়ের পথে রাখেন মিচেল মার্শ। ৪৪ বলে ২ বাউন্ডারি ও ৭ ছক্কায় ৭২ রান করে অপরাজিত থাকেন তিনি। ডেভিড করেছেন মাত্র ১০ বলে অপরাজিত ৩১ রান। অস্ট্রেলিয়ার প্রত্যেক ব্যাটারই দুই অঙ্কের ঘরে রান করেছেন।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে ৪ ওভারে ৪২ রান দিয়ে ২ উইকেট শিকার করেছেন মিচেল স্যান্টনার।

এদিন একটি রেকর্ড নিজেদের করে নিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার গ্লেন ম্যাক্সওয়েল ও নিউজিল্যান্ডের টিম সাউদি। অ্যারন ফিঞ্চকে হটিয়ে অজিদের হয়ে সবচেয়ে বেশি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ (১০৪) খেলা প্লেয়ার এখন ম্যাক্সওয়েল আর মার্টিন গাপটিলকে ছাড়িয়ে কিউইদের হয়ে ২০ ওভারের ফরম্যাটে বেশি ম্যাচ (১২৩) খেলা প্লেয়ার এখন সাউদি।

 

- Advertisement -spot_img
- Advertisement -

সর্বশেষ

- Advertisement -
- Advertisement -spot_img